১২ ফাল্গুন ১৪২৩, শনিবার ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৭, ১:৩৯ পূর্বাহ্ণ
bangla fonts
facebook twitter google plus rss
Natun Somoy logo
Rifats Dental Implant Laser Cosmetic Care
Patbhavon

স্বতন্ত্র ঢংয়ের চিত্রাঙ্কনে যুক্তরাষ্ট্রে প্রশংসিত অনিন্দিতা


২০ মে ২০১৬ শুক্রবার, ১২:৩৫  পিএম

নতুনসময়.কম


স্বতন্ত্র ঢংয়ের চিত্রাঙ্কনে যুক্তরাষ্ট্রে প্রশংসিত অনিন্দিতা

বাংলাদেশী চিত্রশিল্পী শাহনাজ ইসলাম অনিন্দিতা। বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী। স্বতন্ত্র ঢংয়ের চিত্রাঙ্কনের মাধ্যমে এরইমধ্যে তিনি সবার কাছে আলাদা জায়গা করে নিয়েছেন।

এই শিল্পীর হাতে রংতুলি যেনো জীবন্ত হয়ে ওঠে। শিল্পের বিষয়বস্তুগুলো যেনো কথা বলে পরস্পরের সঙ্গে। একটি বহুজাতিক প্রতিষ্ঠানে চাকরির পাশাপাশি অবসর সময় মূলত এভাবেই কাটে প্রবাসী এ বাংলাদেশি শিল্পীর।

ছবি আঁকায় মগ্ন অনিন্দিতা

শাহনাজ কাজ করেন বিশ্বব্যাংকের কমিউনিটি অর্গানাইজেশন ফ্যামিলি মেম্বার নেটওয়ার্কে (ইউবিএফএন)। সংস্থাটির মোজাইক জার্নালের ডেস্কে কাজের পাশাপাশি জার্নালটির বাংলাদেশ অংশও দেখেন তিনি।

পেশাগত জীবনের বাইরে শাহনাজ ইসলাম একজন ফ্রিল্যান্স আর্টিস্ট। মূলত অ্যাক্রেলিক, তৈলচিত্র, ভাস্কর্য নিয়ে কাজ করতেই স্বাচ্ছদ্য বোধ করেন তিনি। তিনি আর্ট এন্ড স্কাল্পচার নিয়ে পড়াশুনা করেছেন ভিয়েনার একাডেমি অব ফাইন আর্টসে।

ছবি আঁকছেন অনিন্দতা

চলতি বছরের নভেম্বর মাসে যুক্তরাষ্ট্রে বিশ্বব্যাংক কার্যালয়ে তার ছবি নিয়ে একটি প্রদর্শনী হবে। সেখানে আরো তিন শিল্পীর ছবি থাকবে। এদের মধ্যে একজন ইতালিয়ান শিল্পী আছেন।

অনিন্দিতা শাহনাজ বলেন,  ‘চাকরি আর চিত্রাঙ্কন আমার দুটি ভিন্ন সত্তা। একটি হচ্ছে প্রফেশন আর অন্যটা হবি। আমার কাছে দুটিই গুরুত্বপূর্ণ। তবে শিল্প-সাহিত্য, বিশেষ করে ছবি আঁকার প্রতি সবসময় একটা অন্যরকম টান অনুভব করি। সেই অনুভব থেকেই আমার আঁকা ছবির আজকের এ সংগ্রহ দাঁড়িয়েছে।’

টিমোথি ইভান্সের সঙ্গে অনিন্দিতা

বর্তমানে বিশ্ব ব্যাংকের ওয়াশিংটন কার্যালয়ের স্বাস্থ্য, পুষ্টি ও জনসংখ্যা বিভাগের জ্যেষ্ঠ পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন টিমোথি ইভান্স। চাকরির বাইরে তিনি একজন সংস্কৃতি অনুরাগী মানুষ। সম্প্রতি অনিন্দিতার বাসায় গিয়ে এই শিল্পীকে আবিষ্কার করেন  টিমোথি ইভান্স। ঘরের দেয়ালজুড়ে টাঙ্গানো প্রতিটি ছবি খুঁটিয়ে খুঁটিয়ে দেখেন টিমোথি। এমন অভিনব চিত্রকর্মের জন্য ধন্যবাদ জানান শিল্পী অনিন্দিতা শাহনাজকে।

টিমোথি গ্রান্ট ইভান্স বলেন, ‘অনিন্দিতা বেশ ভালো ছবি আঁকে। ওর আঁকা ছবি আমাকে মুগ্ধ করেছে। পেশাগত হাজারো ব্যস্ততার মাঝে চিত্রাঙ্কণের প্রতি ওর অনুরাগ প্রশংসনীয়।’

আঁকা-আঁকির এক ফাঁকে

এ শিল্পীর প্রিয় রঙ সাদা, কালো ও লাল। প্রিয় পোশাক শাড়ি। শুধু চিত্রাঙ্কণই নয়, নানা গুণে গুণান্বিত অনিন্দিতা। ‘অসময়’ এবং ‘অচেনা শহর’ শিরোনামে তার দুটি মিউজিক ভিডিও বাংলাদেশি ও প্রবাসী বাংলাদেশি দর্শকদের মধ্যে সম্প্রতি বেশ সাড়া ফেলেছে। মিলন মাহমুদের ‘পরবাস’- অ্যালবামের ‘নিশি’ গানটির কথা লিখেছেন তিনি। এ ছাড়া তার লেখা ছোটগল্পের বই ‘বউয়ের চিঠি’ শিগগিরই প্রকাশ হওয়ার কথা রয়েছে।

নিজের আঁকা ছবির সামনে দাঁড়িয়ে অনিন্দিতা

শাহনাজ ইসলাম অনিন্দিতার জন্ম ঢাকায়। বাবার বাড়ি লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে। কূটনীতিক বাবার চাকরির সুবাদে ছোটবেলার একটা বড় অংশ কেটেছে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। বেশ কয়েক বছর সেখানকার স্কুলে পড়াশুনার পর দেশে এসে রাজধানীর ভিকারুননিসা স্কুলে ভর্তি হন। শাহনাজের খালা বাংলাদেশের প্রথম এভারেস্টজয়ী নারী পর্বতারোহী নিশাত মজুমদার।

নতুনসময়.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন:

সাহিত্য-সংস্কৃতি -এর সর্বশেষ