৪ পৌষ ১৪২৪, সোমবার ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭, ১০:৫০ অপরাহ্ণ
bangla fonts
facebook twitter google plus rss
Natun Somoy logo

বাংলাদেশের আবিষ্কার আমিষযুক্ত ধান ব্রি-৮১


১২ অক্টোবর ২০১৭ বৃহস্পতিবার, ০৭:০৯  পিএম

নতুনসময়.কম


বাংলাদেশের আবিষ্কার আমিষযুক্ত ধান ব্রি-৮১

বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের কৃষিবিজ্ঞানীরা দীর্ঘ গবেষণা করে ধানের নতুন একটি জাত উদ্ভাবন করেছেন। নতুন জাতের নামকরণ করা হয়েছে ব্রি-৮১। নতুন উদ্ভাবিত জাতটির গড় ফলন হেক্টরে ৬ টন। উপযুক্ত পরিচর্যা পেলে এটি হেক্টরে ৮ টন পর্যন্ত ফলন দিতে সক্ষম। এতে উচ্চমাত্রার আমিষ রয়েছে। আমিষের পরিমাণ শতকরা ১০ দশমিক ৩ ভাগ।

জাতীয় বীজ বোর্ড বুধবার বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের (ব্রি) উদ্ভাবিত নতুন ধানের জাত ব্রি ধান-৮১ কৃষক পর্যায়ে চাষাবাদের জন্য অবমুক্ত করেছে। এ নিয়ে ব্রি উদ্ভাবিত উচ্চ ফলনশীল ধান জাতের সংখ্যা হলো ৮৬। এর মধ্যে ৬টি হাইব্রিড ধানের জাত রয়েছে।

দেশের ৮০ ভাগের বেশি ধানি জমিতে ব্রি উদ্ভাবিত এসব ধানের চাষ হয় এবং এ থেকে আসে দেশের মোট ধান উৎপাদনের শতকরা ৯১ ভাগের বেশি।

বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের বিজ্ঞানীরা জানান, ইরান থেকে সংগৃহীত জাত আমল-৩-এর সঙ্গে ব্রি ধান-২৮ এর সংকরায়ণের মাধ্যমে নতুন জাত ব্রি ধান-৮১ উদ্ভাবন করা হয়েছে। ব্রি ধান-৮১ বোরো মৌসুমের জনপ্রিয় ও মেগা জাত ব্রি ধান-২৮-এর একটি পরিপূরক জাত। এটি প্রতিকূল পরিবেশে ঢলে পড়া প্রতিরোধী। জাতটির জীবনকাল ১৪০-১৪৫ দিন। এ জাতের এক হাজার পুষ্ট ধানের ওজন প্রায় ২০ দশমিক ৩ গ্রাম। ব্রি ধান-৮১ জাতে অ্যামাইলোজ রয়েছে শতকরা ২৬ দশমিক ৫ ভাগ এবং এতে উচ্চমাত্রায় আমিষ রয়েছে ১০ দশমিক ৩ ভাগ।

বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক ড. মো. শাহজাহান কবীর প্রথম আলোকে বলেন, নতুন উদ্ভাবিত জাতটি কৃষকেরা চাষাবাদ করলে ফলন বেশি পাবেন এবং বাজারে এর মূল্যও কিছুটা বেশি হবে। নতুন জাতটি নিয়ে তাঁরাও আশাবাদী।

নতুনসময়.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: