১১ ফাল্গুন ১৪২৪, শুক্রবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ৬:৩১ অপরাহ্ণ
bangla fonts
facebook twitter google plus rss
Natun Somoy logo

ফোরজি থেকে আয় হবে ৫৩০০ কোটি টাকা


১৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ মঙ্গলবার, ০১:০১  পিএম

নতুনসময়.কম


ফোরজি থেকে আয় হবে ৫৩০০ কোটি টাকা

ফোর-জি বা চতুর্থ প্রজন্মের টেলিযোগাযোগ সেবা নিলামে ২১০০ ব্যান্ডের প্রতি মেগাহার্ডজ বেতার তরঙ্গে ভিত্তি মূল্য ধরা হয়েছে দুই কোটি ৭০ লাখ ডলার। আর ১৮০০ ব্যান্ডের ভিত্তিমূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে তিন কোটি ডলার। এই দরে ২০ দশমিক ৬ মেগাহার্ডজ বেতার তরঙ্গ বিক্রি হবে। এতে ভ্যাটসহ আয় হবে প্রায় পাঁচ হাজার ৩০০ কোটি টাকা।


ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের উপস্থিতিতে মঙ্গলবার (১৩ ফেব্রুয়ারি) সকালে ঢাকা ক্লাবে শুরু হওয়া তরঙ্গ নিলামে এমনটাই আশা ব্যক্ত করেছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি।

এই নিলামে অংশ নিয়েছে গ্রামীণফোন ও বাংলালিংক। তবে নিলামে অংশ না নিলেও আগের বেতার তরঙ্গেই আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি এই সেবা প্রদানের লাইসেন্স পাবে সেবা দেয়ার জন্য মনোনীত অপর দুই প্রতিষ্ঠান রবি আজিয়াটা ও রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল অপারেটর টেলিটক।

এর আগে রোববার নিলামের মহড়ায় বাংলালিংক ২১০০ ব্যান্ড থেকে ১০ মেগাহার্ডজ এবং ১৮০০ ব্যান্ড থেকে দুই ভাগে আরো নয় মেগাহার্ডজ স্পেকট্রাম নিয়েছে।

অন্যদিকে গ্রামীণফোন শুধু ১৮০০ ব্যান্ডে ১০ মেগাহার্ডজ স্পেকট্রাম কেনার মহড়া দিয়েছে। রবি ও টেলিটক বাড়তি কোনো স্পেকট্রাম কিনবে না বলে আগেই বিটিআরসিকে জানিয়েছে।

মোবাইল ফোন অপারেটরদের ১৮০০ ও ২১০০ ব্যান্ডের তরঙ্গ বরাদ্দ দিতে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন বিটিআরসি এ নিলামের আয়োজন করে।

কমিশন মূলত তিনটি ব্যান্ডের স্পেকট্রামের জন্যে নিলাম আহ্বান করলেও ৯০০ ব্যান্ডের স্পেকট্রামের কোনো আগ্রহী ক্রেতা পাওয়া যায়নি। ফলে ওই ব্যান্ডের জন্যে কোনো নিলাম হচ্ছে না। এই স্পেকট্রামের নিলাম হওয়ার পর অপারেটররা তাদের হাতে থাকা বিদ্যমান স্পেকট্রামের প্রযুক্তি নিরপেক্ষতা নিয়ে তবেই ফোরজি সেবা চালু করবে।

অপারেটর সূত্রে জানা গেছে, থ্রি-জির তুলনায় ফোর-জি ইন্টারনেটের গতি হবে কমপক্ষে দ্বিগুণ। যুক্তরাজ্যভিত্তিক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান ওপেন সিগন্যালের তথ্য অনুযায়ী, বর্তমানে বাংলাদেশে থ্রি-জি ইন্টারনেটের গড় গতি ৩ দশমিক ৭৫ এমবিপিএস (মেগাবিটস প্রতি সেকেন্ড)। আর বিশ্বে ফোর-জি প্রযুক্তির গড় গতি ১৬ দশমিক ৬ এমবিপিএস। ভারতে ফোর-জির গড় গতি বর্তমানে ৬ দশমিক ১৩ এমবিপিএস। পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কা, মালয়েশিয়া, থাইল্যান্ডের মতো দেশে ফোরজির গতি ৯ থেকে ১৪ এমবিপিএসের মধ্যে। ফোরজি গতিতে বিশ্বে সবচেয়ে এগিয়ে থাকা দুই দেশ হলো সিঙ্গাপুর ও দক্ষিণ কোরিয়া। বিশ্বজুড়ে ৩৮ লাখ স্মার্টফোন ব্যবহারকারীর ৫ হাজার কোটি তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণের মাধ্যমে একেকটি দেশের ফোরজি ইন্টারনেটের গতি নির্ধারণ করে ওপেন সিগন্যাল।

এদিকে নিলামে স্পেকট্রাম বিক্রিতে ১০ শতাংশ ভ্যাটের সুপারিশ করেছে জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর)। এর আগে থ্রিজির স্পেকট্রাম নিলামের সময় অপারেটরগুলোর অনুরোধের পরিপ্রেক্ষিতে স্পেকট্রামের ওপর ভ্যাট নির্ধারণ করা হয়েছিল ৫ শতাংশ। তখন এনবিআর সাড়ে ৭ শতাংশ ভ্যাটের প্রস্তাব দিলেও শেষ পর্যন্ত তা আরো কমানোর পর ৫ শতাংশে দাঁড়ায়।

পিডি

নতুনসময়.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: