২ ভাদ্র ১৪২৫, শুক্রবার ১৭ আগস্ট ২০১৮, ৭:৪৮ পূর্বাহ্ণ
bangla fonts
facebook twitter google plus rss
Natun Somoy logo

জীবন সঙ্কায় ভুগছেন প্যারেন্ট হাউজ এর প্রতিষ্ঠাতা ব্যাংক কর্মকর্তা


০৯ জুন ২০১৮ শনিবার, ০৯:৫২  পিএম

নতুন সময় ডেস্ক

নতুনসময়.কম


জীবন সঙ্কায় ভুগছেন প্যারেন্ট হাউজ এর প্রতিষ্ঠাতা ব্যাংক কর্মকর্তা

সাধারণ জীবন ধারণকারী একজন ব্যাংক কর্মকর্তা মোঃ মশিউর রহমান মাজু। ছোটকালে মা হারিয়ে খুব কষ্টে বিশ্ববিদ্যালয় ( রাবি) থেকে লেখাপড়া শেষ করে চাকুরী নেন জনতা ব্যাংকে ২০১১ সালে। অতীতের মা না থাকার দুঃখ উপলদ্ধি করে প্রতিষ্ঠা করে এতিমখানা, নাম দেন প্যারেন্ট হাউজ। এটি একটি উদার- নৈতিক এতিমখানা। সব ধর্মের এতিমের লালনপালন সহ এতিমের পক্ষে কথা বলেন তিনি। কিন্তু বাধ সাজে তার আপন পরিবার ও বংশ। তারা এই লোকটিকে নানাভাবে বহু অন্যায় অত্যাচার ও নির্যাতন করতে থাকেন। বহুবার নিকটবর্তী থানায় অভিযোগ করার পরও অন্যায়ের প্রতিকার পাচ্ছেন না এই সমাজ সচেতন ও মানবিকতা সম্পন্ন ব্যাক্তি। তিনি নিজের অর্থে এতিম সেবার কাজটি চালিয়ে যাচ্ছেন।

তার এতিমখানাটি নীলফামারি জেলার কিশোরগঞ্জের নিজ বসত ভিটায়। শুধু এতিমখানা সেবার মধ্যে সীমিত নয় তার কাজ, এতিমের ন্যায্য অধিকার নিয়ে তিনি কথা বলেন এবং কাজ করেন। সরকারের প্রচলিত আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে দেশকে ও দেশের মানুষকে ভালোবেসে তার এই কাজ।

এতিমের আদর, যত্ন, ভালোবাসা, সেবা, শিক্ষা, আত্মনির্ভরতা, আত্মশুদ্ধি,ও কর্মসংস্থান তার কাজের মূলমন্ত্র। বিশ্ব ইতিহাসে ধর্ম নিরপেক্ষতা অর্থাৎ সব ধর্মের এতিমের সেবা করে তিনি অনন্য নজির সৃষ্টি করছেন। জাতিতে তিনি মুসলিম হলে তার পরিবার অমুসলিমের লালনপালন করার থেকে বিরত থাকতে বললে, তিনি পিছপা হন না নিজস্ব দর্শন অনুযায়ী কাজ করতে। এজন্য বহুবিধ ক্ষতির স্বীকার হন আপন পরিবার থেকে। বারবার তাকে মারধরের নজির রয়েছে। এমনকি পারিবারিক ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত রাখতে তাকে রিহ্যাবিলিটেশন সেন্টার ( পাগলা গারদ) রেখেছিল তার পরিবার। চাকুরী ক্ষেত্রে বিশেষ অসুবিধে সৃষ্টি করেছেন তার পরিবার। এর বড় কারণ পারিবারিক অধিকার থেকে বঞ্চিত রাখা এই মানবপ্রেমিক ব্যক্তিকে।

এখন বড় ধরনের জীবন নাশের হুমকির মুখে আছেন এই প্রগতিশীল মানুষটি। এতো অন্যায় অত্যাদর নির্যাতন সত্ত্বেও জীবনের সঙ্কা নিজে এতিম সেবার কাজে তিনি নিয়োজিত আছেন। উল্লেখ্য : এতিমের জন্য তিনি জীবন উৎসর্গ করেছেন। মানবতাবাদী এই মানুষটি যখন এতিমের সুরক্ষা সম্পর্কিত কাজে নিয়োজিত আছেন, তখন তিনি দেশের সরকারের কাছে তার কাজের জন্য জীবনের আত্মরক্ষার জন্য কথা বলছেন।

নতুনসময়.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: