২ পৌষ ১৪২৪, রবিবার ১৭ ডিসেম্বর ২০১৭, ৮:২৩ পূর্বাহ্ণ
bangla fonts
facebook twitter google plus rss
Natun Somoy logo

অপু বিশ্বাসকে তসলিমার পরামর্শ


০৬ ডিসেম্বর ২০১৭ বুধবার, ০২:২২  পিএম

নতুনসময়.কম


অপু বিশ্বাসকে তসলিমার পরামর্শ

অপু বিশ্বাসকে সম্প্রতি ডিভোর্সের নোটিশ পাঠিয়েছেন শাকিব খান। সেই ঘটনা এখন টক অব দ্য কান্ট্রি। এ নিয়ে নিজের মত জানালেন লেখিকা তসলিমা নাসরিন।

ফেসবুকে ভেরিফায়েড পেজে তসলিমা নাসরিনের লেখাটি নতুন সময়ের পাঠকদের জন্য হুবহু তুলে ধরা হলো।

তসলিমা লেখেন, ‘বাংলাদেশের ছবির হিরো শাকিব তালাক দিচ্ছে বাংলাদেশের ছবির হিরোইন অপু বিশ্বাসকে। অপুর দোষ, অপু তার স্বামীর নির্দেশ পালন করেনি, তার কথা শোনেনি।’

তিনি আরো লেখেন, ‘শাকিবকে ভালোবেসে অপু নিজের ধর্ম ছেড়ে শাকিবের ধর্ম গ্রহণ করেছে, শাকিবের বাড়িতে ঝি চাকরের মতো কাজকর্ম করেছে। শাকিব বিয়ের ব্যাপারটা লুকিয়ে রাখতে বলেছে বলে লুকিয়ে রেখেছে, বাচ্চা হওয়ার খবরটাও লুকিয়ে রাখতে বলেছে বলে দীর্ঘকাল লুকিয়ে রেখেছে, বাচ্চা হওয়ার সময় শাকিব হাসপাতালে যায়নি তারপরও শাকিবের জন্য অপুর ভালোবাসা কিছু কমেনি। এখন বাচ্চা কোলে মেয়েটি পাচ্ছে তালাকনামা। শাকিবের মতো আত্মম্ভরী পুরুষতান্ত্রিকের সঙ্গে তালাক হয়ে যাওয়া অবশ্য ভালো। স্বনির্ভর মেয়ে নিজের দেখভাল নিজেই করতে পারে।’

তসলিমার পরামর্শ, ‘শাকিবের জন্য কান্নাকাটি হাহুতাশ বন্ধ করতে হবে অপুকে। আপাতত অপু বিশ্বাসের কোনো পুরুষকে বিশ্বাস করা উচিত নয়। হজ্ব করাও উচিত নয়। মানুষের পায়ের তলায় পিষ্ট হয়ে মরে যাওয়ার আশঙ্কা ছাড়া ওতে সত্যিকার কোনো ফায়দা নেই। অপুকে এখন নিজের পায়ের তলার মাটি যেমন আরো শক্ত করতে হবে। মনের ভেতরের মাটিও আরো শক্ত করতে হবে। পায়ের তলার মাটি, মনের ভেতরের মাটি— দুটোই এমন নরম যে, যে কেউ তাদের ডুবিয়ে দিতে পারে কাদায়, যে কেউ আবার তাদের মনেও অনায়াসে ডুবে যেতে পারে।’

বছরখানেক অন্তরালে থাকার পর ১০ এপ্রিল একটি বেসরকারি টিভি চ্যানেলে এসে বিয়ে ও সন্তানের খবর ফাঁস করেন অপু। জানান, ২০০৮ সালের ১৮ এপ্রিল বিয়ের পিঁড়িতে বসেছিলেন তিনি ও শাকিব খান। কলকাতার একটি ক্লিনিকে ২০১৬ সালের ২৭ সেপ্টেম্বর জন্ম হয় ছেলে আব্রাম খান জয়ের।

এ খবর প্রকাশের পর থেকে শাকিবের সঙ্গে অপুর দূরত্ব তৈরি হয়। তখন থেকেই ছেলেকে নিয়ে রাজধানীর নিকেতনের বাসায় অপু থাকছেন।

নতুনসময়.কম এ প্রকাশিত/প্রচারিত সংবাদ, তথ্য, ছবি, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট বিনা অনুমতিতে ব্যবহার বেআইনি।

আপনার মন্তব্য লিখুন: